“প্রোডাকশন মেশিনটাকে যদি বিকল করা যায় তাহলে সেই কোম্পানীটাও লাটে উঠে যায়” ….

মোদী সেকুলার হয়ে গেছে,  মোদী সেকুলার হয়ে গেছে…..

আরে ধুর মশাই, মোদী কি এমন করল যে মোদীকে সেকুলার বলছেন?

ইয়ে, মানে শুনলাম মোদী মুসলিম মেয়েদের স্নাতক হওয়ার জন্য ৫১০০০ করে টাকা দিচ্ছেন, তাই মোদীকে হারাতেই হবে….

ও দাদা, বলি আপনি একটি মাথামোটা হিন্দু, মোদী হজের সাবসিডি তুলে মুসলিম মেয়েদের ৫১০০০ টাকা দেবে সেই খবর কি আপনি জানেন?

আরে দাদা, গুজরাটিরা ব্যবসাতে খুব পটু তাই লক্ষ লক্ষ মুসলিমের হজের লক্ষ টাকা করে সরকারী সাবসিডি তুলে হয়তো হাজার দশেক কে ৫১০০০ টাকা দেবে…

সেটা নয়তো মানলাম আমাদের হিন্দু মেয়েরা পাবে না কেন? তাহলে মমতাই ভালো কন্যাশ্রী করে ২৫০০০ করে দিচ্ছে…

হুম তা ঠিক, সেই ২৫০০০ টাকায় মোবাইল কিনে হিন্দু কন্যা লাভ জিহাদের ফাঁদে পড়ে মুসলিম ছেলেকে বিয়ে করছে…

একটা সহজ সরল কথা আজকে মাথায় ঢুকিয়ে নিন যদি কোনো মুসলিম স্নাতক স্তর অবধি পড়াশোনা করে তাহলে সে বোরখা, হিজাব ত্যাগ করে জিনস পরবেই, দাড়ি-টুপিদের বিয়েও করবে না কারন কিস করতে অসুবিধা হবে, কাটা ফ্যাক্টরের জন্য জিহাদীদের ঘৃনা করবে কারন সময়-অসময় সেক্স করা থেকে মুক্তি পেতে, স্লিম ফিগার, ডায়েট কন্ট্রোল করার জন্য গরুর মাংস খাবে না তাই হিন্দু পরিবারে আসতে চাইবে, তিন তালাক জুজু থেকেও দূরে থাকবে এরা…

আসলে এই যোজনাতে হিন্দুদের কপাল খুলল কারন অনেকের ঘরে মুসলিম পুত্রবধূ আসতে চলেছে কারন মুসলিম শিক্ষিত মহিলারা হিন্দু ছেলেদের সবসময় পছন্দ করে, একাধিক শিক্ষিত, প্রতিষ্ঠিত মুসলিম মেয়ে হিন্দু ছেলেদের বিয়ে করেছে এই রকম অনেকেই আমার ফ্রেন্ডলিষ্টেও আছে…..

তাই দীপাবলীতে বাজী পুড়িয়ে সবাই প্রতিজ্ঞা করুন আগের বছর দীপাবলীতে নুসরতের মত সুন্দরী বৌকে নিয়ে বাজী পোড়াবেন ৫১০০০ টাকার….

সবশেষে বলি, মোদীজীর উপর ভরসা রাখুন অযথা কট্টর হিন্দু সাজতে গিয়ে মোদী বিরোধিতা করবেন না কারন কথাতেই আছে “আধখানা গোলমরিচ হিসাবে ভুল করায়, ৭ ক্রোশ পথে হেঁটে গুজরাটি মরিচটা ফেরত আনতে গেছিল”….

মায়াবতী, মুলায়ম যদি ব্রাক্ষন-দলিত ভাগ করতে পারে তাহলে দু-পয়সা খরচ করে মোদী মুসলিমদের ভাগ করতে পারবে না এটা ভাবলেন কি করে?