Thursday, July 29, 2021
Home Bangla Blog রংপুরের ঠাকুরপাড়ায় কি ভারতের নাগরিকরা বসবাস করে?

রংপুরের ঠাকুরপাড়ায় কি ভারতের নাগরিকরা বসবাস করে?

রংপুরের ঠাকুরপাড়ায় কি ভারতের নাগরিকরা বসবাস করে? নইলে ‘ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্ক বিনষ্ট করতে কেন ঠাকুরপাড়ায় হামলা’ করা হবে? তার মানে ভারত না থাকলে কিংবা ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্কের প্রয়োজন ফুরিয়ে গেলে হিন্দুরা কোন নিরাপত্তাই পাবে না? মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের যখন বলেন, ‘ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্ক বিনষ্ট করতেই ঠাকুরপাড়ায় হামলা করা হয়েছে’ সেটা তার দোষ নয়, এটা বাস্তবতা। ভারতের রাষ্ট্রদুত ক্ষতিগ্রস্থ ঠাকুরপাড়া পরিদর্শন করতে গেছেন। ভারতের হিন্দুত্ববাদী সরকার ঠাকুরপাড়ায় হিন্দুদের উপর অত্যাচার হয়েছে বলেই দেখতে গেছে। যেমন রোহিঙ্গা মুসলমান ক্যাম্প দেখতে গিয়ে তুরস্কের ফাস্টলেডি কান্নাকাটি করেছিলেন। মুসলিম দেশের প্রতিনিধিরা টেকনাফে পদধূলি দিয়েছিলো কারণ রোহিঙ্গারা মুসলমান। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীও টেকনাফ পরিদর্শন করেছিলেন কারণ রোহিঙ্গারা উনার মতই মুসলমান। এই যে, হরকলি-ঠাকুরপাড়ায় হিন্দু ১১টি পরিবারকে ২৫ হাজার করে টাকা এবং একটি ক্ষতিগ্রস্থ মন্দিরকে ১০ হাজার টাকা দিয়েছে সরকার এটাও সম্ভবত ভারতকে খুশি করতে। কারণ সুষমা সরাজ বলেছিলেন, বাংলাদেশের হিন্দুদের ক্ষতিপূরণ দিবে সেদেশের সরকার।

তাহলে কি পৃথিবীতে মানবতবাদী দেশ বা জাতি নেই? অবশ্যই আছে। সেটা আমরা আন্তর্জাতিক সংকটেই দেখতে পেয়েছি। এমন কি রোহিঙ্গা নির্যাতনে ধর্মে মুসলিম না এমন জাতি গোষ্ঠি তাদের পাশে এসে দাঁড়িয়েছিলো। তাই মানবতাবাদী আর ধর্মীয় মানবতাবাদীদের লিস্ট না লিখে আজ কেবল বাংলাদেশের কথাতেই সীমিত থাকি। ঠাকুরপাড়া হামলার ঘা কাঁচা থাকতেই কথাগুলো বলে রাখা ভাল। অন্য সময় বললে ‘হিন্দুত্ববাদী’ বলে মনে হতে পারে…।

৭ মাচের্রর ভাষণকে ইউনেস্কো ‘বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ প্রামাণ্য ঐতিহ্য’ হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে। এটি নিঃসন্দেহে বাংলাদেশের জন্য অতি গর্বের বিষয়। কারণ ৭ মার্চ ভাষণ ছিলো বাঙালী মুসলমানের পাঞ্জাবী মুসলমানের বিরুদ্ধে এক প্রতিবাদ। বাঙালী জাতীয়তাবাদ ছিলো প্রকৃতপক্ষে বাঙালী মুসলমান জাতীয়তাবাদ। এর মধ্যে বাঙালী হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান, চাকমা, মারমা, গারো, সাঁওতালসহ আরো ভিন্ন ভিন্ন জাতি গোষ্ঠির চিন্তা ছিলো না। থাকার কথাও না। পাকিস্তান হয়েছিলো ‘মুসলমানের দেশ’ হিসেবে। যে কারণে অবশিষ্ট থেকে যাওয়া অমুসলিম নাগরিকরা রাজনৈতিকভাবে ছিলো হিসেবের বাইরে। পাঞ্জাবী মুসলমানদের কাছে বাঙালী মুসলমান ব্যবসায়, চাকরিতে, প্রশাসনে, রাজনীতিতে বৈষম্যের শিকার হচ্ছিল। অন্যদিকে হিন্দুদের কারণে মুসলমানরা পিছায় আছে তাই দেশভাগ করে মুসলমান অধ্যুষিত দেশ বানাতে হবে- এই ভিত্তিতে পার্টিশন হয়েছিলো। এই জন্যই বলছি অবশিষ্ট অমুসলিম নাগরিকরা রাজনৈতিকভাবে হিসেবের বাইরে ছিলো পাকিস্তানে। পাকিস্তানে বাঙালী হিন্দু বা পাহাড়ীর কোন ইস্যু নেই। সেই হিসেব ৪৭ সালেই মিটিয়ে দেয়া হয়েছিলো। তাই ৭ মার্চের ভাষণ ‘বাঙালী মুসলমানের’ ঐতিহাসিক উত্থানের ডাক ছিলো। এই ভাষণে ‘এবারের সংগ্রাম আমাদের স্বাধীনতার সংগ্রাম’ কখনই পূর্ণিমা শীল, রসরাজ, টিটু রায়ের স্বাধীনতার সংগ্রাম ছিলো না। দেশভাগের আগে সংখ্যালঘু- সংখ্যাগুরু বলতে কোন ধর্মীয় সম্প্রদায়ের অস্তিত্ব ছিলো না। দেশভাগ হিন্দুদের ‘সংখ্যালঘু’ করে রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক-সামাজিকভাবে পরাধীন করে দিয়েছিলো। এই পরাধীনতা স্বাধীন বাংলাদেশের একদম প্রথম দিন থেকেও ছিলো। তাদের মারলে ভারত রাগ করতে পারে- এমনটাই ভেবে এসেছে মুসলিম লীগ, আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি। এরা মুসলমানদের পার্টি। বাংলাদেশে দুই ধরণের পার্টি আছে। একটা মুসলমান পার্টি অন্যটি ইসলামী পার্টি। কমিউনিস্টরাও মুসলমান পার্টির ক্যাটাগরিতে গিয়ে পড়ে।

মিঠা মিঠা আশাবাদের কথা বলতে পারছি না। এদেশের ইতিহাস শুরু করতে হবে ৪৭ সাল থেকে। ৭ মার্চের ভাষণ থেকে নয়। নতুন প্রজন্মকে এই গোটা উপমহাদেশের ইতিহাস নির্মোহভাবে জানাতে পারলেই সম্ভবত একটি দ্রোহী প্রজন্ম আসতে পারে। যারা বিদ্রোহ করবে। এটুকুই আশাবাদ…।

RELATED ARTICLES

আফগানিস্তান: আমেরিকা চিরকাল আফগানদের পাহারা দিবে কেন?

আফগানিস্তান: আমেরিকা চিরকাল আফগানদের পাহারা দিবে কেন? আমেরিকা কি আফগানদের বিপদে ফেলে চলে গেছে? 8 ই মে আফগানিস্তানের একটি স্কুলের বাইরে বোমা বিস্ফোরণের পরেও...

বৈদিক সভ্যতা! মানব সভ্যতার অহংকার।

বৈদিক সভ্যতা! মানব সভ্যতার অহংকার। আজকের দিনে কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া হিন্দু তরুন তরুনীরা তাদের নিজ ধর্ম, কৃষ্টি ও সংস্কৃতির বিষয়ে আলোচনা করার ক্ষেত্রে চরম...

সতীদাহ কি হিন্দু ধর্মের প্রথা, বাল্য বিবাহ ও রাত্রীকালীন বিবাহের উৎপত্তির কারণ কি?

সতীদাহ কি হিন্দু ধর্মের প্রথা ? এবং বাল্য বিবাহ ও রাত্রীকালীন বিবাহের উৎপত্তির কারণ কি? ধর্মীয় বিষয় নিয়ে চুলকানো মুসলমানদের স্বভাব| এই চুলকাতে গিয়ে মুসলমানরা নানা...

Most Popular

বৈদিক সভ্যতা! মানব সভ্যতার অহংকার।

বৈদিক সভ্যতা! মানব সভ্যতার অহংকার। আজকের দিনে কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া হিন্দু তরুন তরুনীরা তাদের নিজ ধর্ম, কৃষ্টি ও সংস্কৃতির বিষয়ে আলোচনা করার ক্ষেত্রে চরম...

বেদে স্পষ্ট করে গো হত্যা নিষেধ আছে-দুর্মর

বেদে স্পষ্ট করে গো হত্যা নিষেধ আছে। অপপ্রচার এর জবাব গো হত্যা এরজবাব। অনেক বিধর্মী এবং অপপ্রচার কারী রা বেদে গো হত্যা এর কথা...

পুষ্যমিত্র শুঙ্গ: ভারতে বৈদিক ধর্মের পুনঃপ্রতিষ্ঠাতা। বৌদ্ধধর্মের শাসন সমাপ্তি করেছিল মৌর্য সাম্রাজ্যের সাথে!

পুষ্যমিত্র শুঙ্গ: ভারতে বৈদিক ধর্মের পুনঃপ্রতিষ্ঠাতা। বৌদ্ধধর্মের শাসন সমাপ্তি করেছিল মৌর্য সাম্রাজ্যের সাথে! ভারতবর্ষে অনেক মহান রাজা রয়েছেন। হিন্দু ধর্ম গ্রন্থ এবং ঐতিহাসিক সাহিত্য...

অনাদি হিন্দু জাতি কী? হিন্দু জতি সুদূর অতীত থেকেই অস্তিত্বশীল, কখনও কৃত্রিম সত্তা ছিল না।

অনাদি হিন্দু জাতি কী? হিন্দু জতি সুদূর অতীত থেকেই অস্তিত্বশীল, কখনও কৃত্রিম সত্তা ছিল না। আজকাল হিন্দু ও জাতীয়তাবাদের মতো শব্দগুলি শোনা যাচ্ছে এবং...

ভারতীয় সভ্যতার এমন শক্তি আছে যা ভােগবাদী দুনিয়াকে সঠিক পথের সন্ধান দিতে পারে।

ভারতীয় সভ্যতার এমন শক্তি আছে যা ভােগবাদী দুনিয়াকে সঠিক পথের সন্ধান দিতে পারে। প্রথমদিকে নানাভাবে অতিরিক্ত চাহিদা নিয়ন্ত্রণে বাধ্য করতে হবে। প্রয়ােজনে শক্তি প্রয়ােগ...

আমাদের সুপ্রাচীন সভ্যতার গৌরবময় মহান ঐতিহ্য জানতে হবে, সময় এসেছে ভুল সংশােধনের।

সুপ্রাচীন সভ্যতা: আমাদের সুপ্রাচীন সভ্যতার গৌরবময় মহান ঐতিহ্য জানতে হবে, সময় এসেছে ভুল সংশােধনের। যে কেউ খোলা চোখে তাকালে আধুনিক বিশ্বের চতুর্দিকে নানা ধরনের পরস্পর...

আর্যরা বহিরাগত নয়: আর্য দ্রাবিড় এক জনজাতি, ‘আর্যরা বহিরাগত’ এই তত্ত্বের উদ্ভাবনের কারণ কি?

আর্যরা বহিরাগত নয়: আর্য দ্রাবিড় এক জনজাতি, 'আর্যরা বহিরাগত' এই তত্ত্বের উদ্ভাবনের কারণ? আর্যরা বহিরাগত নয়: আর্য দ্রাবিড় এক জনজাতি, "আর্যরা বহিরাগত আক্রমণকারী- একটি...
%d bloggers like this: