Collected Post
আব্রাহাম লিংকন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট হিসেবে প্রথম যেদিন অফিস করে স্বাগত বক্তব্য দিচ্ছিলেন সে দিন এক ভদ্রলোক,  তাচ্ছিল্যের ভঙ্গীতে বলে উঠলেন মি. লিংকন আপনার ভুলে যাওয়া উচিত হবে না যে আপনার বাবা আমার পরিবারের জন্য জুতো তৈরী করতো।
সমস্ত সিনেট বিস্ময়ে হতবাক হয়ে গেলো কেউ কেউ বিদ্রুপের হাঁসিও ছুঁড়লো। তারা এমনিতেই মেনে নিতে পারছিলনা কেন একজন মুচির সন্তান প্রেসিডেন্ট হবে।
কিন্তু লিংকন নির্বিকার। তিনি লোকটির চোখে চোখ রেখে স্পষ্ট করে বললেন, স্যার, আমি খুব ভালো করেই জানি আমার পিতা আপনার পরিবারের জন্য জুতো তৈরী করতেন। শুধু আপনার কেন এখানে এরকম অনেকেই আছেন যাদের পরিবারের জন্য বাবা জুতো তৈরী করতেন। জুতো বানাবার ব্যাপারে তিনি ছিলেন একজন জিনিয়াস।
আমি জানি এবং বিশ্বাস করি আমার বাবা যে কাজটি করতেন তা পুরো দরদ দিয়েই করতেন, শুধু গ্রহিতার সন্তুষ্টির জন্য নয়, তার নিজের সন্তুষ্টির জন্যও। তিনি এমন এক অদ্ভুত নির্মাতা ছিলেন যে আজ পর্যন্ত তাঁর নির্মাণ নিয়ে কোন প্রশ্ন ওঠেনি বা কেউ অভিযোগ করেনি। আপনার কি কোন নির্দিষ্ট অভিযোগ আছে? তাহলে বলুন, আমি আপনার জন্য আর এক জোড়া জুতো তৈরী করে দেব। আমি নিজেও জুতো বানাতে পারি।
পুরো সিনেট স্তম্ভিত! কি ধরনের লোক আব্রাহাম লিংকন!! কথাটা যিনি বলেছিলেন তিনি মুখ লুকোবার জায়গা খুঁজছেন, কিন্ত লিংকনও ছাড়লেননা। তিনি বললেন, আপনি এখন বোবা হয়ে গেলেন কেন?
আপনি আমাকে বোকা বানাতে চেয়েছিলেন, এখন চারিদিকে চেয়ে দেখুন কতটা বোকা আপনি নিজেকে বানিয়েছেন।

কোন কাজ ছোট নয়। ছোট সে, যে কাজকে ছোট ভেবে অহেতুক বিদ্রুপ করে। কাজকে সম্মান করুন, কাজকে ভালবাসুন তবেই জীবনে বড় হতে পারবেন। অন্যথায় পরের দয়া নিয়ে বাঁচতে হবে, অন্যের সাহায্য নিয়ে বাঁচতে হবে।

আরেকজন রুই মাছ দিয়ে খায় তাকে হিংসা না করে বরং আপনি পারলে কই মাছ দিয়ে খান। ভাল কাজের প্রশংসা করুন মন্দ কাজকে না বলুন তবে সমাজ সুন্দর হবে।ঙ