রাস্তার দুপাশে সারি সারি আমবাগান, দূরে তাকালে মনে হয় আকাশ টা মাটিতে মিশে গেছে, সন্ধ্যার আকাশে পাখি গুলি যে যার ঘরে ফিরছে, যারা মাঠে কাজে গেছিলো তারাও ফিরে এসেছে, সূর্য তার রাগও কিছুটা কমিয়ে লজ্জায় লাল হয়ে গেছে, হয়তো দিনের শেষে পরাজয় এর গ্লানি তাকে লজ্জিত করেছে, তাই ধরণীর কোলে মুখ লুকিয়ে এই যাত্রায় রক্ষা পেতে চাইছে, শান্ত প্রকৃতির মাঝে হটাৎ ই মেঘের আনাগোনা, সব কিছুই ধীরে ধীরে অদৃশ্য হয়ে পরে, শক্তিশালী মেঘরাজ দুর্বল মেঘরাজ কে সজোরে আঘাৎ হেনে প্রমান করে তার শক্তির বহর, আকাশ ঝলমলিয়ে ওঠে, ঘুমন্ত পৃথিবী সেই আলোকে নিজের উপস্থিতি বুঝিয়ে দেয়, যুদ্ধরত মেঘকুল কে শান্ত করতে পবন দেবে হাওয়া দিয়ে ঠান্ডা করতে উদ্যত হয়, শান্ত ধরণী অশান্ত হয়, পৃথিবী জুড়ে শুরু হয় এক প্রাকৃতিক দুর্যোগ, আর সেই দুর্যোগের রাতে এক মুসলিম আশ্রয় নেয় এক হিন্দু রমণীর গৃহে, কামনার নির্দেশে তারা একে অপরের সাথে মিলিত হয়, কিছু দিন পর ওই রমণীর গর্ভে জন্ম হয় এক শিশুর, একদিন বাজারের পথে ওই নিরামিষাশী হিন্দু রমণী তার শিশু টিকে নিয়ে যাচ্ছিলো, পথে গরুর মাংসের দোকান, নিরামিষাশী হিন্দু রমণীর পুত্র টি গরুর  মাংস খাওয়ার জেদ করলো, কিছুতেই তাকে মাংস খাওয়া থেকে নিবারিত করা গেলো না, হিন্দু রমণী বুঝতে পারলেন সেদিনের সেই পুরুষ টি মুসলিম হওয়ার দরুন, তার শিশুটিরও মাংসের প্রতি ও মুসলিম দের প্রতি বেশি টান অনুভব করে,         ,,,,,,, তাই সেই সব বন্ধু দের বলছি যারা মুসলিম দের প্রতি বেশি টান অনুভব করেন, তারা একবার করে হলেও তাঁদের ডিএনএ টেস্ট করিয়ে নেবেন,ভারতের প্রায় 27কোটি মানুষ কে 5.75লক্ষ টাকার বাড়ি দিয়েছে, 13কোটি লোককে 2.70লক্ষ টাকা বাড়ি তৈরিতে অনুদান দিয়েছে, নতুন করে 37কোটি মানুষের বাড়িতে গ্যাসের সংযোগ দিয়েছে, ভারতের প্রায় প্রতিটি বাড়িতে বিদ্যুৎ সংযোগ এর ব্যবস্থা করেছে, যে কাশ্মীর শুধু কাশ্মীরি মুসলিম দের ছিল, তা সকল ভারতবাসির জন্য কিনে দিয়েছে, 40টাকা kg চাল 2টাকা তে কেনার ব্যবস্থা করেছে, এখনো কালো টাকা ফেরানো সম্ভব হয়নি, যদি সম্ভব হয়, আপনাদের জন্য pok টাও কিনে নেওয়া হবে