পুরো ভারতবর্ষ জুড়ে হিন্দুদের উপর জংগি হামলার ছক।

Spread the love

#Alert_Post
পুরো ভারতবর্ষ জুড়ে হিন্দুদের উপর জংগি হামলার ছক কষছে বিশ্বের সব থেকে কুখ্যাত জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (ISIS)
সম্প্রতি আইএস এর ১০ মিনিটের অডিও টেপ থেকে ভয়াবহ তথ্য জানা গেছে!!প্রধান টার্গেট থাকবে কুম্ভ মেলা,হিন্দুদের মন্দির,মঠ,ও হিন্দু জনার্কিন সমাবেশ!মালায়লম ভাষায় ১০ মিনিটের ওই অডিও ক্লিপ ইতিমধ্যেই ভারতীয়গোয়ান্দার হাতে এসেছে!সেই ক্লিপে একটি পুরুষ গলায় কোরানের কয়েকটি হাদিসের উল্লেখও রয়েছে।ওই অডিও ক্লিপ এ ভারতীয় মোল্লা অর্থ্যাত মোজাহিদদের বলা হয়েছে-‘তোমাদের বুদ্ধি লাগাও। খাবারে বিষ মিশিয়ে দাও। ত্রিশূরপুরমে কুম্ভ মেলায় গাড়ি নিয়ে হামলা চালাও। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে আইএস মুজাহিদিনরা এই সব করছে।ট্রেন এর লাইন কেটে হিন্দুদের মার,হিন্দুদের তীর্থ স্থানে হামলা কর,হিন্দু মহিলাদের মুসলিম কর! জংগিদের প্রধান টার্গেট থাকবে হিন্দুদের তথা পুরো বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফেসটিভেল কুম্ভ মেলা!!!
কুম্ভ মেলা উপলক্ষে বিশ্বের প্রতিটা জায়গা থেকে একত্রে ধর্মপ্রাণ হিন্দুরা তীর্থস্নান করতে আসেন।সাধারণ কুম্ভমেলা প্রতি চার বছর অন্তর আয়োজিত হয়। প্রতি ছয় বছর অন্তর হরিদ্বার ও প্রয়াগে (এলাহাবাদ) অর্ধকুম্ভ আয়োজিত হয়।প্রতি বারো বছর অন্তর প্রয়াগ, হরিদ্বার, উজ্জ্বয়িনী ও নাসিকে পূর্ণকুম্ভ আয়োজিত হয়। বারোটি পূর্ণকুম্ভ অর্থাৎ প্রতি ১৪৪ বছর অন্তর প্রয়াগে আয়োজিত হয় মহাকুম্ভবিশ্বের বৃহত্তম শান্তিপূর্ণ সমাবেশ হিসাবে ২০১৩ সালে এখানে ১০ কোটির বেশি হিন্দুর আগমন ঘটে।যা পৃথিবীর জন্য একটা বিস্ময় ও বটে!পৃথিবীতে এত জন সমুদ্র এবং শান্তি পূর্ন ভাবে সম্পন্ন হওয়ার দৃষ্টান্ত আর একটি ও নাই!প্রতি চার বছর অন্তর অন্তর এই মহাকুম্ভ মেলা অনুষ্টিত হয়!
২০০১ সালে সর্বশেষ মহাকুম্ভে যোগ দিয়েছিলেন প্রায় ১২ কোটি হিন্দু। এটিই ছিল বিশ্ব ইতিহাসের সবচেয়ে বৃহত্তম জনসমাবেশ।।