Friday, September 17, 2021
Home Bangla Blog ভারত শাসিত কাম্মীর নিয়ে পাকিস্তানের কিছু বলার অধিকার থাকে কি করে??

ভারত শাসিত কাম্মীর নিয়ে পাকিস্তানের কিছু বলার অধিকার থাকে কি করে??

ভারতশাসিত জম্মু কাশ্মীর অংশে ভারত যদি পূর্ণ শাসন জারি করে, তাতে পাকিস্তানের কিছু বলার অধিকার থাকে কি না?? পাকিস্তান কেন ভারতীয় এই সিদ্ধান্তে বিরোধিতা করছে?? শুধু বিরোধিতাই নয়, যেন পাকিস্তানের মাটি দখল করেছে ভারত, এমনই প্রতিক্রিয়া দেখাচ্ছে। তাদের এই প্রতিক্রিয়ার যৌক্তিক ভিত্তি কী? কাশ্মীরের জনগণ ভারতের এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করতেই পারে, করছেও, এবং এটা যৌক্তিকভাবেই বিশ্বের বহু মানুষ কাশ্মীরবাসীর সে স্বাধীনতা আন্দোলনকে সমর্থনও করছে। কিন্তু পাকিস্তান তো পুরো যুদ্ধ ঘোষণা করে বসেছে।

জম্মু কাশ্মীরের প্রতিরক্ষা, অর্থ এবং পররাষ্ট্রনীতি এই তিনটি বিষয় সম্পূর্ণ ভারতের নিয়ন্ত্রণে ছিল সেই ১৯৪৭ সাল থেকেই। আরো বড় ইস্যু হলো, বৃটিশরা ভারত থেকে চলে যাবার সময় জিন্নাহর দ্বিজাতিতত্ত্বের ভিত্তিতে যে ভারত ভাগাভাগি হয়, সে ভাগাভাগিতে কাশ্মীরের মতো আরো বেশ কয়েকটি অঞ্চল ভারতের সাথেও যায়নি পাকিস্তানের সাথে যায়নি। তারা আলাদা রাষ্ট্রব্যবস্থার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল। ১৯৪৭ এর পরে সেই অঞ্চলগুলোর প্রায় সবগুলিই পাকিস্তান ও ভারতের সাথে একীভূত হয়। কাশ্মীর রাজ্যটি ভারত বা পাকিস্তান কারো সাথেই যায়নি। এমতাবস্থায় দেশ ভাগাভাগির কিছুকাল পরে পাকিস্তান কাশ্মীর রাজ্য জবরদখল করবার জন্য সৈন্য পাঠায়। কাশ্মীরবাসীর কোন সিদ্ধান্তকে গুরুত্ব না দিয়েই কাশ্মীরের একাংশ দখল করে পাকিস্তান। এমতাবস্থায় কাশ্মীরের তৎকালীন রাজা হরি সিং ভারতের কাছে সাহায্য চাইতে এলে ভারত বর্তমান জম্মু কাশ্মীর অংশ এবং চীন ১৯৬২ সালে কাশ্মীরের যে অংশ দখল করে নেয় সেই অংশও ভারত রাজা হরি সিং এর অনুরোধে পাকিস্তানের হাত থেকে রক্ষা করে। এবং পরবর্তীতে জম্মু-কাশ্মীর অংশ ৩৭০ ধারা অনুযায়ী শর্তযুক্তভাবে ভারতের অধীনতা স্বীকার করে।

তাহলে এখানে কাশ্মীর দখল করেছে কে? প্রথম একাংশ দখল করেছে পাকিস্তান ১৯৪৮ সালে। তারপর আরেক অংশ দখল করলো চীন ১৯৬২ সালে। এবং সর্বশেষ ভারত বাকী অংশে গত ৫ই আগস্ট ভারতের সংবিধান ও ৩৭০ ধারাতে উল্লেখিত শর্তানুযায়ী নিজের সম্পূর্ণ অধিকার প্রতিষ্ঠা করলো

এমতাবস্থায় যেহেতু পাকিস্তান ও চীন অধিকৃত কাশ্মীর অংশের সাধারণ মানুষের কোন অভিযোগ নেই, সেহেতু এই অঞ্চল দুটো নিয়ে বাইরে থেকে আমাদের মাথা না ঘামালেও চলে। আর ভারতশাসিত অঞ্চলের মানুষ যেহেতু স্বাধীনতা দাবী করছে, আমরা মানবিকভাবে সেই দাবীকে সমর্থন করতে পারি, অথবা কেউ চাইলে ভারতের পক্ষও সমর্থন করতে পারে।

কিন্তু কথা হলো, পাকিস্তান যে ভারতশাসিত কাশ্মীর অঞ্চলের বিষয়গুলোকে  দ্বিপাক্ষিক বিষয় হিসেবে উল্লেখ করছে, ভারতশাসিত অঞ্চলে পাকিস্তানের কথা বলতে আসার যৌক্তিকতা কী?? তারা কিভাবে এখানে একটি পক্ষ হলো?

বিষয়টা আমি ক্লিয়ার না। কেউ বিষয়টা ক্লিয়ার করে দিলে বাধিত হই।

RELATED ARTICLES

২৬/১১-র মুম্বই হামলার ধাঁচেই নাশকতার ছক: দিল্লি, মুম্বাই, ইউপি তে সিরিয়াল বিস্ফোরণের ঘৃণ্য চক্রান্ত ব্যর্থ করল প্রশাসন!

২৬/১১-র মুম্বই হামলার ধাঁচেই নাশকতার ছক: দিল্লি, মুম্বাই, ইউপি তে সিরিয়াল বিস্ফোরণের ঘৃণ্য চক্রান্ত ব্যর্থ করল প্রশাসন! সবচেয়ে বড় কথা হল আইএসআইয়ের এই সম্পূর্ণ...

আশ্রয় দেওয়া দেশগুলোতে জিহাদ একটি বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে ওঠছে।

শরণার্থী : আশ্রয় দেওয়া দেশগুলোতে ইসলামী মৌলবাদিদের জিহাদ একটি বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে ওঠছে।নিউজিল্যান্ড ইসলামী জিহাদিদের ছুরি হামলা, হামলাকারী একজন শ্রীলংকান মুসলিম শরণার্থী। অন্য দিকে জার্মানিতে...

কেরালা ভারতে অশান্তির নীরব রাজধানী হয়ে উঠছে। আগামী ১০ বছরের মধ্যে কেরালা পরবর্তী কাশ্মীর হয়ে যাবে।

কেরালা ভারতে অশান্তির নীরব রাজধানী হয়ে উঠছে। আগামী ১০ বছরের মধ্যে কেরালা পরবর্তী কাশ্মীর হয়ে যাবে। কেরালার হিন্দুদের কাছ থেকে ভারতের অনেক কিছু শেখার আছে। কাশ্মীরি...

Most Popular

২৬/১১-র মুম্বই হামলার ধাঁচেই নাশকতার ছক: দিল্লি, মুম্বাই, ইউপি তে সিরিয়াল বিস্ফোরণের ঘৃণ্য চক্রান্ত ব্যর্থ করল প্রশাসন!

২৬/১১-র মুম্বই হামলার ধাঁচেই নাশকতার ছক: দিল্লি, মুম্বাই, ইউপি তে সিরিয়াল বিস্ফোরণের ঘৃণ্য চক্রান্ত ব্যর্থ করল প্রশাসন! সবচেয়ে বড় কথা হল আইএসআইয়ের এই সম্পূর্ণ...

আশ্রয় দেওয়া দেশগুলোতে জিহাদ একটি বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে ওঠছে।

শরণার্থী : আশ্রয় দেওয়া দেশগুলোতে ইসলামী মৌলবাদিদের জিহাদ একটি বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে ওঠছে।নিউজিল্যান্ড ইসলামী জিহাদিদের ছুরি হামলা, হামলাকারী একজন শ্রীলংকান মুসলিম শরণার্থী। অন্য দিকে জার্মানিতে...

কেরালা ভারতে অশান্তির নীরব রাজধানী হয়ে উঠছে। আগামী ১০ বছরের মধ্যে কেরালা পরবর্তী কাশ্মীর হয়ে যাবে।

কেরালা ভারতে অশান্তির নীরব রাজধানী হয়ে উঠছে। আগামী ১০ বছরের মধ্যে কেরালা পরবর্তী কাশ্মীর হয়ে যাবে। কেরালার হিন্দুদের কাছ থেকে ভারতের অনেক কিছু শেখার আছে। কাশ্মীরি...

মন্দির-মসজিদ সহাবস্থান যতগুলি ধর্মীয় সহিষ্ণুতার বিজ্ঞাপন দেখেন তার সবগুলিই মন্দির আগে প্রতিষ্ঠা হয়েছে তারপর মসজিদ।

মন্দির-মসজিদ সহাবস্থান যতগুলি ধর্মীয় সহিষ্ণুতার বিজ্ঞাপন দেখেন তার সবগুলিই মন্দির আগে প্রতিষ্ঠা হয়েছে তারপর মসজিদ। সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশের চট্টগ্রামে একজন মুসলিম যুবক চন্দ্রনাথ ধামে...

Recent Comments

%d bloggers like this: